Thursday, January 19, 2017

কলেজছাত্রী ঝুমাকে ছুরিকাঘাতকারী বখাটে গ্রেপ্তার

               


বিশেষ প্রতিনিধিঃ
ঝুমা এখন সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল হাসপাতfলে চিকিৎসাধীন। চিকিৎসক জানায় ছুরিকাঘাতে ঝুমার বাঁ হাত ও পেটের একাংশ জখম হয়েছে। তার অস্ত্রোপচার করা হয়েছে। তবে তিনি শঙ্কামুক্ত।

ঝুমা অভিযোগ করে বলেছেন তাঁদের বাড়ি জকিগঞ্জ উপজেলার রসুলপুর গ্রামে।একই গ্রামের বাহার (২৪) তার প্রস্তাবে রাজি হওয়ার জন্য তাকে উত্ত্যক্ত করে আসছিলো। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় পর্যায়ে অনেক সালিশ ও হয়েছে । গত রোববার ছোট ভাইকে স্কুল থেকে নিয়ে বাসায় ফিরছিলেন ঝুমা । সঙ্গে তার মা ও ছিল। কালীগঞ্জ বাজারের রাস্তায় হঠাৎ তাদের পথ আটকে তাকে বিয়ের প্রস্তাব দেন বাহার । প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করলে বাহার তার হাতে থাকা ছুরি দিয়ে ঝুমাকে এলোপাতারি আঘাত করে। এ সময় ঝুমার মা ও মারধরের শিকার হন।

ঝুমার বাবা পেশায় একজন ভ্যানচালক। ঝুমা বিয়ানীবাজার সরকারী কলেজের দ্বাদশ শ্র্রেণীর ছাত্রী। ঝুমাকে ছুরিকাঘাতের অভিযোগে বখাটে বাহারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। জকিগন্জ থানার ওসি হাবিবুর রহমান হাওলাদার জানান, আজ বৃহস্পতিবার সকাল ৮টার দিকে জকিগঞ্জের মির্জাচক হাওর থেকে বাহারকে পুলিশ গ্রেফতার করে।

গত রোববার বিকেলে বখাটে বাহারের হাতে আঘাত প্রাপ্ত হওয়ার পর ঝুমার পরিবার জকিগন্জ থানায় একটি মামলা করেন।

শেয়ার করুন