Monday, September 23, 2019

সোনাগাজীতে অচেতন করে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ

সোনাগাজী উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীকে কোমল পানীয় খাইয়ে অচেতন করে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে। গতকাল রোববার রাতে এ ঘটনা ঘটে।

এ ঘটনায় আজ সোমবার দুপুরে অভিযুক্ত আশফাকুল রহমানকে (৩৫) আটক করে পুলিশে দিয়েছেন স্থানীয় লোকজন। আজ বিকেলে ছাত্রীর মামা বাদী হয়ে আশফাকুলকে আসামি করে সোনাগাজী মডেল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে ধর্ষণের অভিযোগে একটি মামলা করেছেন।



পুলিশ ও ছাত্রীর পরিবার সূত্রে জানা গেছে, গতকাল রোববার সন্ধ্যায় ওই ছাত্রী তার নানাবাড়িতে বেড়াতে আসে। রাত আটটার দিকে বাসার ভাড়াটে আশফাকুল কোমল পানীয় এনে ছাত্রী ও তার নানা-নানিকে দেন। কোমল পানীয় খাওয়ার কিছুক্ষণ পর সবাই অচেতন হয়ে পড়েন। পরে গভীর রাতে ঘরে ঢুকে মোবাইল ফোনে ওই স্কুলছাত্রীর আপত্তিকর ছবি তোলেন ও ধর্ষণ করেন।

সোনাগাজী মডেল থানার উপপরিদর্শক মো. সাইফুদ্দিন বলেন, ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য মেয়েটিকে ফেনী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। সেখানে তার জবানবন্দি রেকর্ড করার প্রক্রিয়া চলছে।

সোনাগাজী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মঈন উদ্দিন আহমেদ বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণ ও মুঠোফোনে ছবি তোলার কথা স্বীকার করেছেন আশফাকুল। তাঁর মুঠোফোনটি আলামত হিসেবে জব্দ করা হয়েছে। আগামীকাল মঙ্গলবার তাঁকে ফেনীর জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিমের আদালতে হাজির করা হবে। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

শেয়ার করুন